শ্যাম্পু করার সময় ৫টি ভুল সবাই করেন

মাথার চুল পরিষ্কার করার জন্য সবাই শ্যাম্পু ব্যবহার করেন। খুসকি দূর করতেও শ্যাম্পু করা হয়। কিন্তু শ্যাম্পু করতে গিয়ে প্রায়ই আমরা এমন কিছু ভুল করি যার ফলে চুলের দফারফা৷ কীরকম ভুল?

আরও একবার ভুল করার আগে এই পাঁচ ব্যাপারে সতর্ক থাকুন৷

১. সঠিক শ্যাম্পু বেছে না নেওয়া- প্রথম ভুল হয় এখানেই৷ যেমন তেমন একটি শ্যাম্পু দিয়েই কাজ চালিয়ে নেন অনেকে৷ বেশি দাম বা কম দামের প্রশ্ন অবশ্য নয়৷ কথা হলো, চুলের প্রকৃতি অনুযায়ী কী ধরনের শ্যাম্পু লাগবে তা ঠিক করা খুব জরুরি৷

২. শ্যাম্পুর রাসায়নিকের মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহার- যেকোনো শ্যাম্পুতেই রাসায়নিক পদার্থ থাকে৷ তবে কোনো কোনো শ্যাম্পুতে প্রাকৃতিক উপাদানের পরিমাণ বেশি থাকে৷ কোনোটি ভেষজ আর কোনোটি পুরোপুরি রাসায়নিকে ঠাসা, তা একটু খেয়াল করলেই জানা যায়৷ প্যাকেটের গায়ে বিশেষ চিহ্নে বা সরাসরি লেখাতেও তা উল্লেখও করে দেওয়া থাকে কোনো কোনো ক্ষেত্রে৷ তাই রাসায়নিকের ব্যবহারে চুলের বারোটা যাতে না বাজে, সেদিকে খেয়াল রাখা জরুরি৷

৩. বেশি ধোয়ার ফলে ক্ষতি- যে শ্যাম্পুতে রাসায়নিক যত বেশি তা দূর করতে চুল বেশি করে ধুতে হয়৷ বেশি ধুলে কী ক্ষতি? চুলের পুষ্টিজনিত কারণে সাধারণ যে তৈলাক্ত ভাব তা চলে যায়৷ অর্থাৎ এতে হিতে বিপরীত হয়৷

৪. স্কাল্পের বদলে চুল ধোয়া- খুসকি বা ময়লা বেশি জমে থাকে স্কাল্পে৷ শ্যাম্পু করার সময় বেশিরভাগ ক্ষেত্রে চুল ধোয়ার দিকেই জোর দেওয়া হয় বেশি৷ ফলে লাভের কিছু হয় না৷ যা ময়লা স্কাল্পে থাকে, তা থেকেই যায়৷

৫. কন্ডিশনার ব্যবহার না করা- শ্যাম্পু করার পর কন্ডিশনার ব্যবহার না করা চুলের মারাত্মক ক্ষতি করে৷ চুলকে স্বাভাবিক অবস্থায় ও নমনীয় করতে সাহায্য করে কন্ডিশনার৷ এছাড়া আর্দ্রতাও ধরে রাখে৷ তাই এই ভুলটা করা মানে শ্যাম্পু করার বারো আনাই মাটি হতে পারে৷

x