আজকের ম্যাচে রাজশাহীর একাদশে এক পরিবর্তন কপাল পুরছে যার

টুর্নামেন্টে কাগজে কলমে সবচেয়ে দুর্বল দল ছিল মিনিস্টার গ্রুপ রাজশাহী। কিন্তু ৪ রাউন্ড শেষে ২ ম্যাচে ২ জয় নিয়ে গ্রুপের শীর্ষে আছে শান্তর রাজশাহী।

শীর্ষস্থানে থাকা রাজশাহী আজকে মুখোমুখি হবে তামিম ইকবালের ফরচুন বরিশালের বিরুদ্ধে।সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টায় ম্যাচ টি মিরপুর স্টেডিয়াম থেকে সরাসরি সম্প্রচার করবে টি স্পোর্টস।

চলুন দেখে নেই যেমন হতে পারে রাজশাহীর পরিবর্তিত একাদশ:-

প্রথম ২ ম্যাচে ২ টি তে জয় পেলেও আজকে পরিবর্তন আসতে পারে রাজশাহীর একাদশে।একাদশে পরিবর্তনের পাশাপাশি পরিবর্তন আসতে পারে দলের পজিশনে।

রাজশাহীর দলে ৪ জন ওপেনার রয়েছে। তাই তাদের প্রতিদিন হয়ত একই পজিশনে খেলানো মুশকিল হয়ে যাবে কোচের জন্য, বিশেষ করে পারফর্ম করতে না পারলে।

অধিনায়ক শান্তর সাথে আনিসুল ইসলামের বদলে ওপেনিং করতে পারে রনি কিংবা আশরাফুল।এছাড়াও একাদশে ফিরতে পারে রকিবুল ইসলাম। মুকিদুল ইসলাম বাদ পরতে পারে একাদশ থেকে। আসতে পারে রেজাউল ইসলাম বা সানজামুল ইসলাম।

এছাড়াও পরিবর্তন আসবে ফরচুন বরিশালে।আজকে তামিমের সাথে ওপেনিং করতে দেখা যেতে পারে কিনা মিরাজ সেটা একটা প্রশ্ন।

আগের ম্যাচের এরকম বাজে শেষ ওভার অবশ্যই ভুলে যেতে চাইবে মিরাজ। সব কিছুর জন্যই সমালোচিত হয়েছিল মিরাজ। তবে পাশে পাশে পাচ্ছে কোচ কে।

গত ম্যাচে তামিম প্রথম বল মোকাবেলা করতে দিয়েছিলেন মিরাজকেই। কিন্তু ডানহাতি ব্যাটসম্যানের আর দ্বিতীয় বল মোকাবেলা করা হয়নি, তার আগেই ফিরেছেন সাজঘরে।

দলে স্পেশালিষ্ট ওপেনার থাকা সত্ত্বেও মিরাজকে ওপেনিংয়ে নামিয়ে সমালোচিত হয়েছিল বরিশাল। তবে দলের কোচ সোহেল ইসলাম বলছেন, টিম কম্বিনেশনের কারণেই এই সিদ্ধান্ত।

তিনি বলেন,

‘ওপেনার আছে এটা ঠিক। একটা হচ্ছে- টিমের কম্বিনেশনের একটা ব্যাপার আছে। আর দ্বিতীয়ত হচ্ছে- মিরাজ এবারই প্রথম ফ্র্যাঞ্চাইজি টুর্নামেন্টে ওপেন করছে না। তার আগের অভিজ্ঞতা আছে। যেহেতু তার অভিজ্ঞতা আছে, সে ওপেনে ভালো রানও করে এসেছে। সে পরীক্ষিত, ভালো খেলতে পারে। হয়ত এতটা সুযোগ পায়নি।’