৫ দিনে ৩ টা খাট ভাঙলো হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা বরিশালের নব দম্পতি ! করোনা আতঙ্ক ছড়িয়ে পরেছে পুরো বিশ্বব্যাপী। করোনা শুধু একটা ভাইরাস নয়, মরণঘাতী ভাইরাস।

বর্তমান সময়ে সারা বিশ্বকে এক যােগে আতঙ্কিত করতে পেরেছে একমাত্র করােনা ভাইরাস এবং এর দ্বারা সংঘটিত কোভিড – ১৯ রােগ । ধনী থেকে দরিদ্র সকলেই এ রােগ দ্বারা আক্রান্ত হতে পারে।

গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি থেকে শুরু করে অতি সাধারণ মানুষ কেউই করােনা ভাইরাসের থেকে নিরাপদ নয়।সারা বিশ্বের অর্থনীতি হঠাৎ করে থমকে দাঁড়িয়েছে। বিনােদন জগৎ বা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে গেছে। যােগাযােগ ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে।

যােগাযােগের প্রধান মাধ্যম হয়ে উঠেছে শুধু ইন্টারনেট। কিন্তু হোম কোয়ারেন্টাইন বাংলাদেশের নব বিবাহিত দম্পতিদের বিনোদনের নতুন খোঁড়াক হয়ে দাড়িয়েছে। বরিশালের এমনই এক দম্পতি সাইমুন এবং মিম।

তারা নব দম্পতি।নতুন বিবাহিত হওয়ার পরে তাদের আর কোনো হানিমুন হয়নি। বিয়ের পরেই তাদের থাকতে হয়েছে হোম কোয়ারেন্টাইনে। কারন সাইমুন প্রবাসী। প্রবাসী হওয়ার কারণে তাকে জোর করেই হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হয়েছে। নব দম্পতিরা হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা অবস্থায় গড়েছে নতুন রেকর্ড।

পাঁচ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইনে তারা খাঁটি ভেঙেছে তিনটা। বিয়ের পর এমন খাঁট ভেঙ্গে যায় তাদের। খাঁটি পাল্টানোর সময় প্রতিবেশীরা দেখে ফেলেছে। এক প্রতিবেশী আমাদের জানায়, তারা পাঁচ দিনে তিনটা খাঁট ভেঙেছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নব বিবাহিত দম্পতিরা এখন লজ্জায় আর ঘর থেকে বাহির হচ্ছে নাকমেন্ট বক্সে আপনার মতামত প্রদান! করুন।