দেড়-মাসের মধ্যে পানিশূন্য হবে তুরস্ক

এবার নতুন বছরের শুরুতেই চরম খরায় ভুগছে তুরস্ক। বলা হচ্ছে গত এক দশকের মধ্যে এবারই সবচেয়ে বেশি খরায় ভুগছে দেশটি। বলতে গেলে পানির জন্য হাহাকার চলছে সেখানে। সবচেয়ে খারাপ অবস্থা ইস্তাম্বুলের।

জানা গেছে খরা না কাটলে আর মাত্র দেড়-মাসের মধ্যেই পানিশূন্য হয়ে পড়বে এক কোটি ৭০ লাখ জনসংখ্যা অধ্যুষিত তুরস্কের অন্যতম প্রধান এ শহরটি।

এ অবস্থার জন্য দায়ী করা হচ্ছে দেশটির নগর উন্নয়ন কর্তৃপক্ষকে। উন্নয়নকাজে পানির অপরিমিত ব্যবহারের কারণেই এ সংকট বলে অভিযোগ উঠেছে।

জানা গেছে, ইস্তাম্বুলের পানি সরবরাহের প্রধান উৎস ওমেরিল বাঁধের পানির স্তর গত ১৫ বছরের মধ্যে সর্বনিম্নে নেমে গেছে। ঠিকমতো বৃষ্টি না হওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে রাজধানী আঙ্কারার মেয়র মানসুর জাভাস আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমকে বলেছেন, আর মাত্র ১১০ দিন চলার মতো পানি জমা রয়েছে। ইজমির ও বুরসায় যেসব বাঁধ রয়েছে সেগুলোতে যথাক্রমে ৩৬ ও ২৪ শতাংশ পানি অবশিষ্ট রয়েছে। সূত্র: দ্য মেইল