কমলালেবুরে চেয়েও বেশি ভিটামিন সি রয়েছে যে ৭টি খাবারে

করোনার শুরু থেকেই ভিটামিন সি এর চাহিদা অনেক বেড়েছে। নিজেকে সুস্থ রাখার জন্য ভিটামিন সি এর বিকল্প নেই। ভিটামিন সি এর রয়েছে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা।

আমরা সবাই ভিটামিন সি বলতে কমলালেবুকে বুঝি। তবে কমলালেবু ছাড়াও ভিটামিন সি এর আরো অনেক উৎস রয়েছে। একটি মাঝারি সাইজের কমলালেবুতে ৬৯.৭ গ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে।

পেঁপে:

সমীক্ষা বলছে পেঁপে আপনার হজম উন্নত করে। এছাড়া ত্বক ফর্সা করে, সাইনাসের সমস্যা দূর করে এবং হাড়কে শক্তিশালী করে। একটি পেঁপেতে ৮৮.৩ গ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে।

স্ট্রবেরি:

এক কাপ স্ট্রবেরিতে ৮৭.৪ গ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে। কেবল এটিই নয়, স্ট্রবেরি আপনাকে ফোলেট এবং অন্যান্য যৌগ সরবরাহ করে যা হার্ট ভালো রাখে।

ফুলকপি:

ভাপানো বা রান্না করা যে ফুলকপি হোক না কেন একটি ফুলকপি থেকে আপনি ১২৭.৭ গ্রাম ভিটামিন সি পাবেন। সেই সাথে রয়েছে ৫ গ্রাম ফাইবার ও ৫ গ্রাম প্রোটিন।

আনারস:

আনারসে ব্রোমেলিন রয়েছে যা হজমে সহায়তা করে। ব্রোমেলাইন একটি প্রাকৃতিক অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি এজেন্ট হিসাবে কাজ করে যা আপনাকে ওয়ার্কআউটের পর দ্রুত স্বস্তি এনে দেবে। একটি আনারসে ৭৮.৯ গ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে।

ব্রকলি:

ব্রকলি ক্যান্সার প্রতিরোধ করতে পারে। একটি ব্রকলিতে রয়েছে ১৩২ গ্রাম ভিটামিন সি আর ফাইবার।

আম::

আমে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ রয়েছে। একটি মাঝারি সাইজের আমে ভিটামিন সি রয়েছে ১২২.৩ গ্রাম।

লাল মরিচ:

লাল মরিচে ক্যালোরি কম ও ভিটামিন সি রয়েছে। মন মেজাজ উন্নত রাখতে পারে এই মরিচ। ১০০ গ্রাম লাল মরিচে ১২৭.৭ গ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে।

ব্রাসেলস স্প্রাউটস:

ছোট বাঁধাকপিতে এমন উপাদান রয়েছে যা ক্যান্সার প্রতিরোধ করতে পারে। এতে ফাইটোনিউট্রিয়েন্টস ও ফাইবার রয়েছে। একটি ব্রাসেলস স্প্রাউটসে ৭৪.৮ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি রয়েছে।