৯ বছরের শিশু, মাসে আয় ২০ কোটি টাকা

কিছু প্রতিকূলতা থাকলেও শিশুদের ইন্টারনেট ব্যবহারে বাধা দেওয়া যাবে না। কারণ এতে করে শিশুরা পিছিয়ে পড়বে। শিশুরা পিছিয়ে পড়লে দেশ পিছিয়ে যাবে।

নতুন খবর হচ্ছে, অক্লান্ত পরিশ্রম মানুষের ভাগ্য বদলে দিতে পারে এটাই হয়তো তার প্রমাণ। শিশু বয়সে যখন অন্যরা স্কুলে পড়তে যায়, মাঠে খেলাধুলা করে সেই বয়সে এই শিশু ইউটিউব থেকে আয় করে রীতিমতো ধনীদের কাতারে দাঁড়িয়ে আছে।

রায়ান কাজি, বয়স তার ন’বছর। এই বয়সের আর পাঁচটা শিশু যখন স্কুল-বাড়ি-খেলার মাঠ করে জীবন কাটায়, সেই বয়সেই সে রীতিমতো ধনী। ‘ফোর্বস’ এর হিসাব অনুযায়ী গত তিন বছর ধরে লাগাতার ইউটিউব থেকে সব থেকে বেশি আয় করেছে এই খুদে শিশু।