সুজনের পরামর্শে সফল শান্ত

আবার জাতীয় দলের সাথে টিম লিডার হিসেবে শ্রীলঙ্কা ট্যুরে গেছেন খালেদ মাহমুদ সুজন। আর গতকাল বাংলাদেশ শ্রীলঙ্কা প্রথম টেস্টের প্রথমদিনে বুধবার খেলা চলাকালীন টিভি পর্দায় বার কয়েক দেখা গেছে ড্রেসিং রুমে হাস্যোজ্জ্ব খালেদ মাহমুদ ক্রিকেটারদের সাথে খোশগল্পে মত্ত।

তাকে দেখে বুঝা গেছে ক্রিকেটারদের চাঙ্গা করা এবং শেষ মুহূর্তের টিপস দিতে ভুল হয়নি তার। আর জাগো নিউজকে মুঠোফোন দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে শান্তর শতরান নিয়ে কথা বলেন সুজন।

খালেদ মাহমুদ সুজন বলেন, “আমি শান্তকে খুব ভাল চিনি, জানি। আবাহনীতে খেলার কারণে ওকে গত কয়েক বছর খুব কাছ থেকে দেখেছি। ওর সামর্থ্য, প্লাস-মাইনাস আর সীমাবদ্ধতা, দুর্বলতা অনেক কিছুই আমার খুব ভাল জানা।

আমি জানি ওর শুরুতেই অফস্ট্যাম্পের বাইরে স্কোয়ার কাট আর অনসাইডে ফ্লিক খেলার প্রবণতা খুব বেশি। আজ তাই ব্যাটিংয়ে নামার আগে শান্তকে বার বার বলে দিয়েছি, শোন উইকেটে সেট হওয়ার আগে কিছুতেই অফস্ট্যাম্পের বাইরে স্কোয়ার কাট আর ফ্লিক খেলবি না।

এবং সে কথা রেখেছে শান্ত। এক দুই বার অফস্টাম্পের বাইরে চালিয়ে দিলেও পর মুহূর্তে নিজেকে সংযত করে নিয়েছে।”

২০১৭ সালে টেস্টে অভিষেক হলেও ব্যাট হাতে কিছুতেই ভাল করতে পারছিলেন না নাজমুল হোসেন শান্ত। অবশেষে সপ্তম টেস্টে এসে দারুণ ব্যাটিংয়ে ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন। প্রথম দিন শেষে ২৮৮ বলে ১৪টি চার ও ১ ছক্কায় ১২৬* রানে অপরাজিত আছেন এই বাহাতি ব্যাটসম্যান।

ক্যান্ডিতে দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্টের প্রথম দিনেই ২ উইকেট হারিয়ে ৩০২ রান তুলেছে সফরকারীরা। শান্তর সেঞ্চুরির দিনে তামিম ৯০ ও অধিনায়ক মমিনুল ৬৪* রানে অপরাজিত আছেন।