পদত্যাগ করছেন মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মুহিউদ্দিন

মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন পদত্যাগ করছেন। তিনি আগামীকাল সোমবার তাঁর পদত্যাগপত্র জমা দেবেন।

দেশটির একটি নিউজ পোর্টালে প্রকাশিত প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে আজ রোববার বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ কথা জানায়।

মালয়েশিয়ায় ক্ষমতাসীন জোটের মধ্যে অন্তর্দ্বন্দ্বের জেরে সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারিয়েছেন মুহিউদ্দিন। এ কারণে তিনি পদত্যাগ করতে যাচ্ছেন বলে খবরে বলা হয়।

দেশটির মন্ত্রিসভার জ্যেষ্ঠমন্ত্রী মোহদ রেদজুয়ান মোহাম্মদ ইউসুফ জানিয়েছেন, মন্ত্রিসভার সদস্য ও নিজের রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীদের ইতিমধ্যে পদত্যাগের বিষয়টি মৌখিকভাবে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী মুহিউদ্দিন ইয়াসিন।

২০২০ সালে মালয়েশিয়ার পার্লামেন্ট দেওয়ান রাকাইয়েতের সদস্যদের ভোটে জিতে দেশের প্রধানমন্ত্রীর পদে আসীন হন মুহিউদ্দিন ইয়াসিন। তবে তার পক্ষে ও বিপক্ষে পড়া ভোটের ব্যবধান অল্প থাকায় নিজের পদ ধরে রাখতে চাপের মুখে ছিলেন তিনি।

সত্যিই পদত্যাগ করলে মুহিউদ্দিনের ১৭ মাসের অস্থিরতাপূর্ণ শাসনকালের সমাপ্তি ঘটবে। একই সঙ্গে তাঁর পদত্যাগ মালয়েশিয়াকে নতুন করে অনিশ্চয়তার মধ্যে ফেলতে পারে। কারণ, দেশটিতে করোনার সংক্রমণ বাড়ছে। তা ছাড়া দেশটির অর্থনীতির অবস্থাও ভালো নয়।

মুহিউদ্দিন পদত্যাগ করলে পরবর্তী সরকার কে গঠন করবেন, তা এখনও পর্যন্ত স্পষ্ট নয়। কারণ, কোনো আইনপ্রণেতারই পার্লামেন্টে সুস্পষ্ট সংখ্যাগরিষ্ঠতা নেই। আবার করোনা মহামারির মধ্যে মালয়েশিয়ায় নতুন করে নির্বাচন হবে কি না, তা–ও বোঝা যাচ্ছে না।

এরপর কী হবে তা সিদ্ধান্ত নেওয়ার দায়িত্ব সাংবিধানিক রাজা বাদশাহ আল-সুলতান আবদুল্লাহর।