সেদিন ধোনির কাছে ক্ষমা চেয়েছিলাম: শোয়েব

সেদিন ধোনির কাছে ক্ষমা চেয়েছিলাম: শোয়েব

২০০৬ সালের জানুয়ারিতে চির প্রতিদ্বন্দ্বী দেশ পাকিস্তান সফরে গিয়েছিল ভারত।

সেই সফরে একটি কাণ্ড ঘটিয়ে ভারতের ব্যাটসম্যান মহেন্দ্র সিং ধোনির কাছে ক্ষমা চেয়েছিলেন পাক গতি তারকা শোয়েব আখতার।

সম্প্রতি ভারতের সাবেক ক্রিকেটার আকাশ চোপড়ার ইউটিউব চ্যানেলে সেই স্মৃতি রোমন্থন করলেন শোয়েব।

পাক সফরে গিয়ে নিজের টেস্ট ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি করেন ধোনি। পাক বোলারদের তুলোধুনো করে ১৫৩ বলে ১৪৮ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেন।

বোলিং প্রান্ত থেকে বিষয়টি একেবারেই সহ্য হচ্ছিল না শোয়েব আখতারের। এক পর্যায়ে ধোনির গা বরাবর কোমড়ের ওপরের উচ্চতার ডেলিভারি করেন শোয়েব। তবে সঙ্গে আবার দুঃখপ্রকাশ করেছিলেন তিনি।

রাওয়ালপিন্ডি এক্সপ্রেস খ্যাত এই সাবেক পাক তারকা বলেন, আমার মনে আছে, যখন ভারত এলো পাকিস্তানে, আমার বাম পায়ের ফিবুলা ভেঙে গিয়েছিল।

বোধশূন্য করে রাখার জন্য প্রতিদিন খেলা শুরুর আগে আমার পায়ে বড় বড় ইনজেকশন দেয়া হতো।

আমি সেভাবেই বোলিং করে যেতাম তারা আমাকে শেষ ম্যাচটা খেলতে বলেছিল। কারণ এরপর আর আমার পা আমাকে সঙ্গ দেবে না, ফিবুলাটা প্রায় ঝুলছিল। আর এমন শারীরিক অবস্থায় মানসিকভাবেই বিক্ষিপ্ত ছিলাম আমি।

শোয়েব বলতে থাকেন ,ফয়সালাবাদে ৮-৯ ওভারের একটা স্পেল করেছিলাম। সেই স্পেলটা খুবই দ্রুতগতির ছিল।

ধোনি তখনই সেঞ্চুরি করে। আমি তখন ইচ্ছা করেই একটা বিমার (কোমড়ের ওপরের উচ্চতার ডেলিভারি) করি। তবে সঙ্গে সঙ্গে ক্ষমা চেয়েছিলাম।’

প্রসঙ্গত, সেই ম্যাচে ধোনির ১৪৮ রানের ইনিংস খেললেও শেষপর্যন্ত ম্যাচটি ড্র হয়। আর দুই ইনিংস মিলে পাঁচ উইকেট নিয়ে ম্যান অব দ্য ম্যাচ হয়েছিলেন পেসার আরপি সিং।
তথ্যসূত্র: ক্রিকেট এডিক্টর