ফাঁসির রায়ের পর হাসতে হাসতে প্রিজন ভ্যানে উঠলেন ও ইশারায় টাকাও চাইলেন!

বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হত্যা মামলার রায় ঘোষণা করা হয় বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর)। এই মামলায় রায়ে ৬ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত।

বিচারক রায় পড়ার পুরো সময়জুড়েই শান্ত ও স্থির ছিলেন মিন্নি। এদিকে এই রায়ের পর আরেক মৃত্যুদ’ণ্ডপ্রাপ্ত আসামি রাকিবুল হাসান রিফাত ফরাজীকে হাসতে দেখা গেছে।

রায় ঘোষণার পর আসামিদের আদালত থেকে কারাগারে নেওয়ার সময় রিফাত হাসতে হাসতে প্রিজন ভ্যানে ওঠেন। এ সময় ভ্যানে উঠেই তিনি হাতের ইশা’রায় কারো কাছে টাকাও চান।

বুধবার বিকেল ২টা ৫৫ মিনিটের সময় এ দৃ’শ্যের অ’বতা’রণা হয় বরগুনার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের প্রধান ফটকে।

রায় ঘোষণার পর ফাঁ’সির দ’ণ্ডে দ’ন্ডি’ত এ মামলার ছয় আসামির মধ্যে মিন্নি ও আল কাইয়ুম ওরফে রাব্বি আকন ব্যতিত অন্য সকল আসামিকে স্বাভাবিক দেখা যায়।

এ সময় প্রিজন ভ্যানের ভেতর থেকে উচ্চস্বরে রিফাত ফরাজী বলেন, ”আমরা যা করেছি তা আল্লাহই করিয়েছে। আর ভবিষ্যতেও যা হবে, তাও আল্লাহই করাবেন।”

পরে আদালত থেকে প্রিজনভ্যানের ভেতরেই উ’ল্লা’স করতে করতে কারাগারে যান তারা।

x